সায়েন্স টক – ০১ : গরমের দিনে আরামের পোষাক

Reading Time: 2 minutes

গ্রীষ্মের প্রচন্ড তাপদাহে জনজীবন অতিষ্ট। প্রাকৃতিক বাতাসেও যেন সেই গরমের ছোয়া। এটি নাকি গ্রীষ্মের ফল পাকানো গরম। কিন্তু সেই ফল পাকার সাথে সাথে মানুষেরও আজ পেকে যাওয়ার অবস্থা(!)। তাইতো বাসা থেকে বের হতে গেলেই আমরা প্রথমে চিন্তা করি এই গরমে কোন পোষাকটি আমাদের একটু হলেও প্রশান্তি দেবে। কেননা গরমের দিন এলে আমরা প্রায়শই শুনে থাকি রঙিন পোষাকের চেয়ে সাদা পোষাকই বেশী আরামদায়ক। কিন্তু কখনো কি জানতে চেষ্টা করেছি কথাটি আদৌ সত্য কিনা? আর যদি সত্য হয় তাহলে কেন? তবে যারা বিজ্ঞানের ছাত্র, যারা বড় বড় সমীকরন মেলাতে অভ্যস্ত তাদের কাছে এটি মামুলি একটি বিষয়।

সুতরাং আমার এই লেখাটি একদম সাধারন মানুষের জন্য। যাই হোক, আমি বলছিলাম গরমের দিনে রঙিনের চেয়ে সাদা পোষাক কেন আরামদায়ক। আমরা জানি সূর্যের আলোতে আলোকশক্তি ও তাপশক্তি উভয়ই থাকে। এখন সূর্যের এই তাপশক্তিকে যে রঙের পোষাকটি বেশি পরিমানে শোষণ করবে তার উষ্ণতা বৃদ্ধি পাবে এবং আমাদের শরীরে গরমের মাত্রাও বৃদ্ধি করবে। বৈজ্ঞানিক গবেষণায় দেখা গেছে সাদা ও রঙিন পোষাকের মধ্যে রঙিন পোষাকের তাপ শোষণ ক্ষমতা অনেক বেশি। অপরদিকে সাদা পোষাকের তাপ শোষণ ক্ষমতা কম এবং প্রতিফলন ক্ষমতা অনেক বেশি হয়।

আমরা একটু খেয়াল করলে দেখতে পাবো আমাদের বাসায় চায়ের কাপ গুলোর ভেতরের রঙ সাধারণত সাদা হয়ে থাকে। এটি ঠিক উপরের সূত্রেরই বাস্তব উদাহরণ। কেননা কাপের ভেতরের রঙ সাদা হওয়ায় কাপটি খুব বেশী তাপ শোষণ করেনা, তাই ‘চা’ অনেক্ষণ গরম থাকে।

সুতরাং আমাদের নিকট এখন বিষয়টি স্পষ্ট যে, সাদা রঙের পোষাকের তাপ শোষণ এবং ধারন ক্ষমতা কম হয়। তাই সাদা পোষাক সূর্যের রশ্মি থেকে কম তাপ শোষণ করে এবং আমাদের শরীরে কম তাপ পরিবাহিত করে। এই জন্যই গরমের দিনে সাদা পোষাক আমাদের জন্য আরামদায়ক হয়।

Spread the love

Related Posts

Add Comment

error: Content is protected !!